করোনা ভাইরাস: ইকুয়েডরের স্বাস্থ্য ও শ্রমমন্ত্রীর পদত্যাগ

0
18

তারা নিউজ ডেস্ক:

ইকুয়েডরের স্বাস্থ্যমন্ত্রী এবং শ্রমমন্ত্রী পদত্যাগ করেছেন। দেশে পাঁচ শতাধিক কোভিড-১৯ রোগীর শনাক্ত হয়েছেন, কর্তৃপক্ষের এমন ঘোষণার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই পদত্যাগ করেন তারা।

রোববার (২২ মার্চ) বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ তথ্য জানায়।

শনিবার (২১ মার্চ) ইকুয়েডরে কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা পাঁচশ’ ছাড়িয়েছে। এমন ঘোষণার পরই পদত্যাগ করেন দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী এবং শ্রমমন্ত্রী। এ পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার দেশটিতে জরুরি অবস্থা জারি করে সরকার। দেশটিতে পর্যটকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। সংক্রমণ ঠেকাতে অভ্যন্তরীণ চলাফেরায়ও বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে।

শনিবার এক ভার্চুয়াল কনফারেন্সে কর্মকর্তারা জানান, দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৫৩২ জন কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এ রোগে মৃত্যু হয়েছে সাতজনের।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী কাতালিনা অ্যান্দ্রামুনোর পদত্যাগের বিষয়টি নিশ্চিত করলেও এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানাননি কর্মকর্তারা। জুয়ান কার্লোস জেভালোস নামে এক চিকিৎসককে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া, দেশটির শ্রমমন্ত্রীও পদত্যাগ করেছেন। প্রধানমন্ত্রী লেনিন মোরেনো এক বিবৃতিতে বলেন, দরিদ্র জনগোষ্ঠীকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া হবে। চারশ’ মার্কিন ডলারের কম আয় করে এমন পরিবারগুলোকে দু’মাসে ৬০ মার্কিন ডলার দেওয়া হবে। এছাড়া, ছোট ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোকে সহায়তা দেবে ব্যাংক।

LEAVE A REPLY